সৈকতে ভাড়ায় মিলে নারীসঙ্গী!

পর্যটকদের বিভিন্ন টাইপের অনৈতিক এবং বেআইনি চাহিদা পূরণে মাদক কিংবা অনৈতিককর্মীদের নিয়ে কাজ করা মানুষের কমতি কক্সবাজারে।

প্রতিনিয়ত এসব অবৈধ কার্যক্রম অভিনব থেকে আধুনিক হচ্ছে। দেশের অন্যতম পর্যটন শহর কক্সবাজারে নানা ধরণের অসামাজিক কাজ করে উপার্জন করে লক্ষাধিক মানুষ।

সম্প্রতি কক্সবাজারের একদল পর্যটক আইনশৃংখলা বাহিনীকে জানিয়েছেন, সমুদ্র স্নানের সময় টাকার বিনিময়ে নারীসঙ্গী ভাড়া পাওয়ার বিষয়টি।

পুলিশকে তারা জানায়, ইনানি বিচে গোসলের সময় তাদেরকে তিন জন লোক বেশ কয়েকবার করে নারী সঙ্গী ভাড়া নেওয়ার জন্য বিরক্তিকর প্রস্তাব রাখে। ওই সময় দশ পনের হাত দূরে দুইজন নারীও স্নান করছিলেন। তাদেরকেই স্নানের সময় ঘন্টা হিসেবে ভাড়া নেওয়ার জন্য প্রস্তাব রাখে দালালেরা।

পর্যটকরা বিষয়টিতে ক্ষিপ্ত হয়ে একজন দালাল যার নাম সুরুজ মিয়া তাকে পাকড়াও করে নিকটবর্তী পুলিশ ফাঁড়িতে সোপর্দ করে। কিন্তু আধঘন্টা পরেই সেই সুরুজ মিয়া পুলিশের কাছ থেকে ছাড়া পেয়ে যায়।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*