স’বার হা’তে মো’বাইল ফো’ন দি’য়েছি। এ’খন আ’মাদের দে’য়া জি’নি’ষ ব্য’বহার ক’রেই তা’রা ব’লছে,এটা ‘হ’লো,ও’টা হ’লোনা,:প্র’ধানমন্ত্রী শে’খ হা’সিনা

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বৃহস্পতিবার স’রকারের সমালোচনার নামে দেশে-বিদেশে অ’প্রচার চা’লিয়ে দেশের ভাবমূর্তি ক্ষু’ন্ন করায় বিএনপি সহসুবিধাবাদি শ্রেণীর ক’ঠোর সমালোচনা করে বলেছেন, আ’গুন স’ন্ত্রাস বিএনপি’র প্ল্যানড গেম।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘এখন যে নির্বাচনগুলো হচ্ছে সেখানে তারা (বিএনপি) নামকা ওয়াস্তে ক্যান্ডিডেট দেন,খুব হৈ চৈ করেন। এটা তাদের একটা পরিকল্পিত খেলা, প্ল্যানড গেইম। আমরা এখন জানি তারা এটাই করবে। কারণ তাদের উদ্দেশ্য হচ্ছে নির্বাচনকে প্রশ্নবিদ্ধ করা, নিজের নাক কে’টে পরের যাত্রা ভঙ্গ করা।’

তিনি বলেন, ‘ঢাকা-১৮ আসনে যখন নির্বাচনটা করতে গেলাম (১২ নভেম্বর) তখনো একই ঘ’টনা, কতগুলো বাসে তারা আ’গুন দিল। পার্লামেন্টে বিএনপি’র এক নেতা (সং’সদ সদস্য হারুনুর রশীদ) এ ব্যাপারে প্রশ্ন তুললো। আমার কাছে এ বি’ষয়ে তার দলের লোকের বক্তব্যের ভিডিও রেকর্ড ছিল।’

আওয়ামী লীগ সভাপতি এ সময় ২১ আগষ্টের গ্রে’নেড হা’মলা চা’লিয়ে অ’পপ্রচারের মাধ্যমে সেটির দায়ভার আওয়ামী লীগের ও’পর চা’পানোর অতীত ইতিহাস স্মরণ করিয়ে দেন।প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা বৃহস্পতিবার সকালে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সম্পাদক মন্ডলীর সভায় একথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ভার্চুয়ালি দলীয় প্রধান কার্যালয় ২৩ বঙ্গবন্ধু এ্যাভেনিউতে অনুষ্ঠিত বৈঠকের সংগে যুক্ত হন।তিনি বিএনপি’র প্রতি ই’ঙ্গিত করে বলেন, ‘আমাদের বি’রুদ্ধে কিছু বলে সংগঠনের জন্য বাইরে থেকে ভাল ফান্ড আনতে পারবেন,

বাংলাদেশকে এখনও দরিদ্র, ক্ষু’ধার্ত বা গরিব দেখিয়ে ফান্ড আনতে পারবেন। তবে, এই ফান্ডটা যায় কোথায়, কি কাজে ব্যবহার হয় তারও একাউন্টেবিলিটি থাকতে হবে, তারও হিসেব দিতে হবে।’শেখ হাসিনা বলেন, ‘শুধু কথা বলে লাভ নেই (ঢালাও সমালোচনা), ভবি’ষ্যতে সেই হিসেবটাও আমরা আস্তে আস্তে নিতে শুরু করবো।’

তিনি বলেন, ‘অ’পপ্রচার করে মানুষকে বিভ্রান্ত করা এবং বিদেশে গিয়ে বিদেশিদের কাছে অ’পপ্রচার করা, আজেবাজে কথা বলে বাংলাদেশের বি”রুদ্ধে বদনাম করে আসা, এটা দু’র্ভাগ্যজনক এবং তারা ঠিক (বিএনপি) এই কাজটাই করে যাচ্ছে।’

খ হাসিনা বলেন,‘সমালোচনা করা ভাল, এর মাধ্যমে আমরা জানতে পারি কোথাও কোন ত্রুটি রয়েছে কি না। কিন্তু বিদেশে অ’পপ্রচারে যে দেশের ভা’বমূর্তি ন’ষ্ট হয়, সেটা তারা ভু’লে যায়।’

প্রধানমন্ত্রী এ সময় তার করে দেয়া ডিজিটাল বাংলাদেশে প্রযুক্তির উৎকর্ষ এবং অবাধ বাক স্বাধীনতার সুযোগ নিয়ে মিডিয়াতে স’রকারের ঢালাও সমালোচনার তীব্র নি’ন্দা জানান।

শেখ হাসিনা বলেন, ‘আমি জানি আমাদের এক ধরনের শহুরে লোক রয়েছে। আমরাই ডিজিটাল করে দিয়েছি, বেস’রকারী টিভি চ্যানেল দিয়েছি, সবার হাতে মোবাইল ফোন দিয়ে দিয়েছি। এখন আমাদের দেয়া জিনিষ ব্যবহার করেই তারা বলছে যে, এটা হলো, ওটা হলোনা, তাদের কেউ দেখছে গণতন্ত্রই নাই।’

তিনি বলেন, ক’রোনা বুঝিয়ে দিয়ে গেল দু’র্নীতি আর অ’নিয়ম করে উপার্জিত টাকা-পয়সার কোন মূ’ল্য নেই। যারা কিছু হলেই চিকিৎসার জন্য বিদেশ চলে যেতেন তাদের জন্য ক’রোনাভা’ইরাসে শিক্ষা দিয়ে গেছে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, আওয়ামী লীগ স’রকার জনগণের জন্য কাজ করে, ফলে দলটির প্রতি দেশের মানুষের আস্থা ও বিশ্বাস রয়েছে। তিনি এ সময় বিএনপির মি’থ্যাচার সম্প’র্কে সকলকে সতর্ক থাকারও আহবান পুনর্ব্যক্ত করেন।

তিনি বলেন, ভ্যাকসিন নিয়ে নানা গবে’ষণা চলছে, স’রকার আগাম টাকা দিয়ে রাখছে এবং যখনই ভ্যাকসিন বাজারে আসবে বাংলাদেশে পাবে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, পরিস্থিতি মোকাবেলায় এবং দেশের অর্থনৈতিক কার্যক্রম সচল রাখতে তার স’রকার তাৎক্ষণিকভাবে প্রণোদনা প্যাকেজ ঘোষণা করেছে। পাশাপাশি ক’রোনা সং’ক্র’মণ শুরু পর পরই দুই হাজার ডাক্তারের পাশাপাশি নার্স ও টেকনোলজিস্ট নিয়োগ দেয়া হয়েছে।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*